ডাইনে-বাঁয়ে, উপর-নীচে ‘ড্যান্স’ করছে চোখ? মারাত্মক এই অসুখ কী জানেন

গুড হেলথ ডেস্ক

চোখের নানারকম অসুখের কথা আমরা শুনেছি। দৃষ্টিশক্তির পক্ষে সবচেয়ে বিপজ্জনক রোগগুলোর মধ্যে ডায়াবেটিক রেটিনোপ্যাথি, গ্লুকোমা, ক্যাটার‍্যাক্ট বা ছানি, ম্যাকুলার ডিজেনারেশন ইত্যাদি রোগের নাম শোনা যায়। কিন্তু ‘ড্যান্সিং আই’ (Nystagmus Awareness Day) সিনড্রোমের কথা শুনেছেন?

দেশে মনে হবে চোখ ড্যান্স করছে। চোখের মণি কখনও স্থির থাকবে না। ডাইনে-বাঁয়ে. উপর-নীচে ঘুরতে থাকবে। কখনও রোগীকে দেখে মনে হবে ট্যারা, আবার কখনও দেখবেন রোগীর দু’চোখের মণি উপরে উঠে বসে আছে। এমন মারাত্মক অসুখ খুব কম জনেরই হয়। এই রোগের সঠিক চিকিৎসা না হলে রোগী অন্ধও হয়ে যেতে পারে।

ডাক্তারি ভাষায় এই রোগকে বলে ‘নাইস্টাগমাস’ (Nystagmus Awareness Day)। আই মুভমেন্টে গণ্ডগোল হয়। একে ড্যান্সিং আই সিনড্রোমও বলা হয়।

গলব্লাডারে পাথর হবে কিনা আগাম বুঝে যাবেন, ক্যালসিয়াম টেস্ট করিয়ে নিন

Nystagmus

কী কী উপসর্গ দেখা দেয়

চোখ কখনও স্থির থাকবে না। চোখের মণি ডাইনে-বাঁয়ে, উপরে-নীচে লাফাতে থাকবে (Nystagmus Awareness Day) ।

ঘন ঘন চোখ পিটপিট করবে রোগী

কখনও চোখের মণিদুটো একজায়গায় থাকবে, কখনও দুটি বিপরীত দিকে চলে যাবে। আবার কখনও একটি চোখের মণি নীচের দিকে থাকবে, অন্য চোখেরটা উপরের দিকে উঠে যাবে। চোখের এমন অবস্থার জন্য কখনওই দৃষ্টি স্বচ্ছ হবে না।

Nystagmus

ডবল ভিশন, ঝাপসা দৃষ্টি হবে। রোগের বাড়াবাড়ি হলে অন্ধও হয়ে যেতে পারে রোগী।

রাতের বেলায় দৃষ্টি পুরোপুরি ঝাপসা হয়ে যেতে পারে (Nystagmus Awareness Day) ।

চোখের দৃষ্টি স্বচ্ছ না হওয়ার কারণে মস্তিষ্কেও সেই সঙ্কেত পৌঁছবে না। তাই রোগী কী দেখছে বা আদৌ কিছু দেখছে কিনা সেই প্রতিক্রিয়াও দেবে না।

 nystagmus

 

কী থেকে হতে পারে এই রোগ?

ক্যাটার‍্যাক্ট বা অন্য কোনও চোখের রোগ থেকে হতে পারে।

স্ট্রোক, মাল্টিপল স্ক্লেরোসিস থাকলে চোখের এই অসুখ হতে পারে (Nystagmus Awareness Day) ।

মাথায় আঘাত থেকে চোখের রোগ হতে পারে।

অ্যালবাইনিজম (ত্বকে পিগমেন্ট কমে যাওয়া) থেকে ড্যান্সিং আই হতে পারে।

অতিরিক্ত অ্যালকোহল, ধূমপানের নেশা থাকলে ঝুঁকি বাড়ে।