অ্যাপেন্ডিসাইটিস সব সময়ই ইমার্জেন্সি, কী কী লক্ষণ দেখে বুঝবেন

গুডহেলথ ডেস্ক: স্কুল থেকে ফিরেই পেটে ব্যথা করছিল রিঙ্কির। মা বারবার জিজ্ঞাসা করায় বলেছিল বন্ধুদের সঙ্গে ফুচকা খেয়েছে। পেটের ডানদিকে চিনচিনে ব্যথা হচ্ছে, সেই সঙ্গে গা গুলনো, বমি বমি ভাব (Appendix Pain)। বাড়ির লোকজন ভেবেছিল গ্যাস বা অম্বলের ব্যথা। ওষুধ খেয়েও ব্যথা না কমায় শেষে ডাক্তারের কাছে গিয়ে জানা যায় রিঙ্কির অ্যাপেন্ডিসাইটিস হয়েছে। অবস্থা এমনই পর্যায়ে পৌঁছেছে যে অস্ত্রোপচার ছাড়া গতি নেই।

অ্যাপেন্ডিসাইটিসের ব্যথা এবং সাধারণ পেট ব্যথার মধ্যে পার্থক্য করা যায় না অনেক সময়েই। গ্যাস্ট্রিকের সমস্যা, খাদ্যে বিষক্রিয়া বা অ্যাপেন্ডিসাইটিস, সবকটি পেট ব্যথার উৎস ও ধরন আলাদা। ডাক্তাররা বুঝলেও উপসর্গ চিনতে বেশিরভাগ সময়েই ভুল হয় আমাদের। ফলে চিকিৎসায় দেরি হয়ে যায়। অ্যাপেনডিক্স নিয়ে অযথা চিন্তা করতে বারণ করেন ডাক্তাররা, কিন্তু অ্যাপেনডিক্সের সংক্রমণ হলে যদি সঠিক সময় তার চিকিৎসা না হয় ও অস্ত্রোপচার না করানো হয় তাহলে প্রাণ সংশয়ের ঝুঁকিও থেকে যায়।

This Is What Appendicitis Really Feels Like | Prevention

অ্যাপেনডিক্স কী?

অ্যাপেনডিক্স হল একটি ছোট নলাকার অঙ্গ যা বৃহদন্ত্রের সঙ্গে জোড়া থাকে। শরীরের ডান দিকে তলপেটে ক্ষুদ্রান্ত্র ও বৃহদন্ত্রের সংয়োগস্থলে ২ থেকে ৪ ইঞ্চি এই অঙ্গটির তেমনভাবে কোনও ভূমিকা থাকে না। তৃণভোজী প্রাণীদের শরীরে অ্যাপেনডিক্স সক্রিয় অঙ্গ, কিন্তু মানুষের শরীরে এটি প্রায় লুপ্তপ্রায় অঙ্গের মতো থাকে। অ্যাপেনডিক্স না থাকলেও শরীরের কোনও ক্ষতি হয় না।

5 Warning Signs That Your Appendix Is in Danger - WomenWorking

অ্যাপেনডিক্স নিয়ে কখন চিন্তা বাড়বে?

এই ছোট নলাকার অঙ্গে যদি কোনওভাবে ভাইরাস বা ব্যাকটেরিয়ার সংক্রমণ হয় বা খাবারের টুকরো ঢুকে মুখের কাছটাতে আটকে যায়, তখনই বিপত্তি বাঁধে। অ্যাপেনডিক্স ফুলে ওঠে, ব্যথা শুরু হয়। ডাক্তারি ভাষায় তখন একে বলে অ্যাপেন্ডিসাইটিস

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, অ্যাপেন্ডিসাইটিস হওয়ার ঝুঁকি ৮ শতাংশ। সাধারণত ১৮ থেকে ২৫ বছর বয়সীদের অ্যাপেন্ডিসাইটিস হওয়ার সম্ভাবনা বেশি। বাচ্চাদের ১০ বছরের পর থেকে অ্যাপেন্ডিসাইটিস হতে পারে। অ্যাপেন্ডিসাইটিস কিন্তু বংশগত নয়। যে কোনও কারও হতে পারে। সঠিক সময় অস্ত্রোপচার করালে বিপদ থাকে না।

 

অ্যাপেন্ডিসাইটিসের ব্যথা বুঝবেন কী করে?

অ্যাপেন্ডিসাইটিসের ব্যথা হলে কিছু লক্ষণ দেখা দেয়—তলপেটের ডান দিকে ব্যথা শুরু হয়। পেট ফুলে ওঠে। অ্যাপেনডিক্স পেটের ডান দিকে থাকে, কিন্তু অনেক সময় ডান দিক থেকেই ব্যথা শুরু হবে এমনটা হয় না। নাভির চারদিকে ব্যথা করতে থাকে। সেটা ক্রমশ ছড়াতে থাকে।

ব্যথা কম হলেও বমি ভাব থাকে। জিভে কোনও স্বাদ থাকে না। খাবারে অরুচি হতে পারে। অনেকের ডায়ারিয়ার লক্ষণ দেখা দেয়। পেট খারাপ হতে পারে। কোষ্ঠকাঠিন্যও ভোগায়। সেই সঙ্গে ঘুসঘুসে জ্বর হতে পারে।

Emergency Signs and Symptoms of Appendicitis

Causes Of Stomach Pain Below The Navel Like Being Pricked By A Needle? - HealthReplies.comHealthReplies.com

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, ক্ষুদ্রান্ত্র ও বৃহদন্ত্রের সংযোগস্থল যেখানে অ্যাপেনডিক্স থাকে তাকে ডাক্তারি ভাষায় বলে সিকাম। অনেক সময় সিকামে সংক্রমণ হলেও অ্যাপেন্ডিসাইটিস বলে ভুল হতে পারে। আবার ইউরেটারে রেনাল স্টোন হলেও অনেকে অ্যাপেনডিক্সের ব্যথা বলে ভুল করেন। আলসেরাটিভ কোলাইটিস, গলব্লাডার, মূত্রনালীর সংক্রমণ (ইউটিআই), পেলভিক ইনফ্ল্যামেটরি ডিজিজের সঙ্গে অ্যাপেন্ডিসাইটিস গুলিয়ে ফেললে চলবে না। এক্ষেত্রেও পেট ব্যথার উপসর্গ একই রকম হতে পারে। তাই তলপেটে ব্যথা শুরু হলেই দেরি না করে ডাক্তারের কাছে চেকআপ করিয়ে নেওয়া ভাল। ডাক্তাররা আগে এক্স-রে করে নিশ্চিত হয়ে নেন।

অ্যাপেন্ডিসাইটিসের চিকিৎসা দ্রুত হওয়া দরকার

ডাক্তাররা লক্ষণ বুঝলে আগে পেলভিক সিটি-স্ক্যান বা এক্স-রে করিয়ে নেন। অ্যাপেন্ডিসাইটিস ধরা পড়লে তার চিকিৎসা হয় দুভাবে—অ্যান্টিবায়োটিক ও অস্ত্রোপচার।

Appendicitis | Boston Children's Hospital

অ্যাপেনডিক্সে সংক্রমণ যদি কম থাকে বা তেমনভাবে বাড়াবাড়ি না হয় তাহলে ডাক্তাররা অ্যান্টিবায়োটিক খাওয়ান রোগীকে। এতে যদি ইনফেকশন সেরে যায় তাহলে অস্ত্রোপচার করার দরকার পড়ে না। কিন্তু যদি দেখা যায় সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়ছে, ওই জায়গা ফুলে উঠে পুঁজ হয়ে গেছে তাহলে দ্রুত অস্ত্রোপচার করার দরকার পড়ে।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, বেশি করে জল খেতে হবে। পুষ্টিকর খাবার ডায়েটে রাখতে হবে। কোষ্ঠকাঠিন্য থেকেও অ্যাপেন্ডিসাইটিস হতে পারে। সেক্ষেত্রে পর্যাপ্ত জল খেতে হবে, বেশি করে শাকসব্জি রাখতে হবে রোজকার ডায়েটে।

পড়ুন দ্য ওয়ালের সাহিত্য পত্রিকা সুখপাঠ